দলীয় পতাকা ফেস্টুন টাঙ্গানোকে কেন্দ্র করে তৃণমূল-বিজেপি সংঘর্ষ, উত্তপ্ত হুগলির আরামবাগ

খড়গপুর ২৪×৭: পতাকা ফেস্টুন টাঙানোকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত হয়ে উঠল আরামবাগের কেশবপুর। বিজেপি সমর্থকদের মারধরের অভিযোগ উঠল তৃণমূলের বিরুদ্ধে।

শুক্রবার মলয়পুরে প্রচারে আসার কথা আরামবাগ কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী মধুসুদন বাগের। বিজেপির দাবি, সেই উপলক্ষে এলাকায় পতাকা ও ফেস্টুন দিয়ে সাজাচ্ছিলেন বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা। সে সময় কিছু বলা হয়নি। পরে ওইসব কর্মী-সমর্থকদের বাড়ি গিয়ে তাদের মারধর করে তৃণমূল সমর্থকরা। মারধররের ঘটনায় মোট ৩ বিজেপি কর্মী আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে আহত এক বিজেপি কর্মীর আঘাত গুরুতর হওয়ায় তাকে আরামবাগ মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত বিজেপি কর্মী সন্তান মালিকের দাবি, বিজেপির পতাকা, ফেস্টুন টাঙানোর অভিযোগেই আমাদের মারধর করা হয়। বাড়িতে এসে তৃণমূল কর্মীরা আমাদের মারধর করে। পরিস্থিতি সামাল দিতে হাজির হয় আরামবাগ থানার পুলিস।

ওই ঘটনা নিয়ে তৃণমূল নেতা স্বপন নন্দী বলেন, গোটা ঘটনাটাই সাজানো। বিজেপির নিজেদের মধ্যে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব রয়েছে। আমাদের পতাকা খুলে ওরা বিজেপির পতাকা টাঙাচ্ছিল। তৃণমূল কর্মীরা তাতে বাধা দেয়। মারধরের কোনও ঘটনা ঘটেনি। আগামী ৬ এপ্রিল ভোট। মানুষ এর জবাব দেবে।