Saturday, October 16, 2021
Homeজেলামালদহবিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক নিয়ে সন্দেহ করায়, স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন করল স্ত্রী...

বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক নিয়ে সন্দেহ করায়, স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন করল স্ত্রী ও তার প্রেমিক

- Advertisement -

খড়গপুর ২৪×৭ ডিজিটাল: বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক নিয়ে সন্দেহ করায় প্রেমিকের সাহায্যে স্বামীকে নৃশংসভাবে খুন করল স্ত্রী। এমনই অভিযোগ উঠল মালদহের হরিশ্চন্দ্রপুরে। হাত-পা ভাঙা, মাথা থেতলে দেহ উদ্ধার হল সিঁড়ির নীচে থেকে। দেহ লোপাট করতে গিয়েই ফাঁস হল সবরকিছু। ঘটনায় তোলপাড় হরিশ্চন্দ্রপুরের ডেইলি মার্কেট এলাকা। নিহত যুবকের নাম রাম মুসোহর।

পেশায় রঙ মিস্ত্রির পরিবারে কেন এমন ঘটনা ঘটলো। আপাতত পুলিসের নজর রয়েছে পড়েছে দুটি বিষয়ের উপরে। একটি হল পরকীয় এবং দ্বিতীয়টি হল সম্পত্তি নিয়ে বিবাদ। খুনের ঘটনায় আপাতত  গ্রেফতার করা হয়েছে মৃতের স্ত্রী, তার পুরুষ সঙ্গী ও ছেলেকে।হরিশ্চন্দ্রপুরের ডেইলি মার্কেট এলাকার বাসিন্দা রাম মুসোহর রোজই মদ্যপান করতো। এনিয়ে স্ত্রী পঞ্চমীর সঙ্গে ঝগড়া-বিবাদ লেগেই থাকতো। ছেলে বাপি মুসোহরের সঙ্গেও বাবার বিবাদ হতো।

- Advertisement -

প্রতিবেশী সূত্রে জানা যাচ্ছে, রঙ মিস্ত্রির কাজ করতো রাম মুসোহর ও তার ছেলে বাপি। এর মধ্যেই রামের পিসতুতো দাদা মনোজ দিল্লি থেকে এসে তাদের সঙ্গ রঙের কাজ করতে শুরু করে। ব্যবসা জমে ওঠে। পরে রামের বাড়িতেই থাকতে শুরু করে মনোজ। একসঙ্গে থাকার সুবাদে রামের স্ত্রী পঞ্চমীর সঙ্গে সম্পর্কে গড়ে ওঠে মনোজের। এনিয়ে স্ত্রীর সঙ্গে অশান্তি লেগেই থাকতো রামের।

পুলিস সূত্রে খবর, সম্প্রতি কাজকর্ম ছেড়ে দিয়েছিল রাম। মদ খাওয়ার পরিমাণও বাড়িয়ে দিয়েছিল। সংসার চালাতো মূলত মনোজ ও বাপি। এর মধ্যেই মনোজ ও পঞ্চমী বাড়ি বিক্রি করে অন্যত্র চলে যাওয়ার পরিকল্পনা করে। সেখানেই সম্ভবত বাধা হয়ে দাঁড়ায় রাম। এনিয়ে কয়েকদিন ধরে আশান্তিও হয়ে রামের সঙ্গে। শেষপর্যন্ত মঙ্গলবার রাতে বাড়ির সিঁড়ির নীচে থেকে উদ্ধার হয় রামের হাত-পা ভাঙা, মাথা থ্যাঁতলানো মৃতদেহ।

 

RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

error: Content is protected !!