Thursday, December 2, 2021
Homeজেলাপশ্চিম মেদিনীপুরআলাদা হয়ে গেল পা-লেজ,খড়গপুরে পথকুকুরের শরীরে বাজি বেঁধে মানুষের বর্বর উল্লাস
Advertisement

আলাদা হয়ে গেল পা-লেজ,খড়গপুরে পথকুকুরের শরীরে বাজি বেঁধে মানুষের বর্বর উল্লাস

Advertisement

Advertisement

খড়গপুর ২৪×৭ ডিজিটাল:  বাজিতে উড়িয়ে দেওয়া হল একটি পথ কুকুরের পা ও ল্যাজ! মানুষের বর্বর উল্লাসের শিকার এই নিরীহ পশু।

- Advertisement -
Advertisement
- Advertisement -

এই অসহায়, মারাত্মক আহত কুকুর। যেটির পা ও উরুর কাছ থেকে সম্পূর্ণ উড়ে গিয়েছে। উড়ে গিয়েছে ল্যাজের অর্ধেক। যন্ত্রনাকাতর কুকুরটিকে উদ্ধার করে তার শুশ্রূষা শুরু করেছেন স্ট্রিট পজ নামে একটি পশুপ্রেমী সংগঠন। ঘটনাটি ঘটেছে দীপাবলীর আগের দিন বুধবার। আর এই ক্ষতবিক্ষত কুকুরটির সন্ধান পাওয়া গিয়েছে বৃহস্পতিবার খড়গপুর শহরের খড়িদা গুরুদুয়ারা এলাকায়।

যদিও বিষয়টি প্রকাশ্যে এসেছে শনিবার সকালে। তবে কুকুরটির সন্ধান পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার থেকেই এই পশুপ্রেমী সংগঠনটি তাকে সুস্থ করে তোলার কাজ শুরু করেছে। এদিকে ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসার পর শনিবার পুলিশ ঘটনার তদন্তে নেমেছে।

এইদিন দুপুরে খড়গপুর মহকুমা পুলিশ আধিকারিক দীপক সরকার, খড়গপুর টাউন থানার আইসি বিশ্বরঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায় সহ পুলিশ বাহিনী ঘটনাস্থলে যান। এই ব্যাপারে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (খড়গপুর) রানা মুখোপাধ্যায় জানিয়েছেন কুকুরটিকে পটকা জাতীয় কিছু দিয়ে আঘাত করা হয়েছে।

ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। একটি মামলা দায়ের করা হবে। তবে ইতিমধ্যে নয়জনকে আটক করা হয়েছে। এদিকে জানা গিয়েছে পশুপ্রেমী সংগঠনটির পক্ষ থেকে অভিযোগ দায়ের করা হতে চলেছে।

স্ট্রিট পজ নামক খড়গপুরের ওই সংগঠনটির কর্মকর্তা কমলজিৎ সিং জানিয়েছেন, ‘ঘটনাটি ঘটেছে খরিদা গুরদুয়ারের সামনের এলাকায়। সম্ভবতঃ ৩দিন আগে এই বর্বরতা হয়েছে। ছেলে কুকুরটির বাঁ পা উরু  থেকে পুরোপুরি উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। উড়ে গিয়েছে ল্যাজের ৭৫ ভাগ। বাম চোখের নিচে গভীর ক্ষত রয়েছে।

কুকুরটিকে মারাত্মক জখম অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে ওখানকার কিছু যুবক আমাকে খবর দেন। কালীপুজোর দিন ওকে আমরা ট্রেস করতে পারি। ওর ল্যাজে পোকা হয়ে গিয়েছিল। বৃহস্পতিবার ওকে কিছুটা ওষুধ দেওয়া হয়। কিন্তু অপারেশন ছাড়া ওকে বাঁচানো সম্ভব নয় বলে আমাদের একজন পশু চিকিৎসকের সাহায্য নিতে হয়। শুক্রবার দুপুরে অপারেশন করা হয়েছে কুকুরটির।’

এই অপারেশন করেছেন খড়গপুরের একজন পরিচিত পশু চিকিৎসক অসীম দে। তিনি জানান, ‘ প্রাথমিক ভাবে মনে হচ্ছে জোরালো বাজিতেই উড়ে গিয়েছে পা টি। যেভাবে হাড় আলাদা হয়ে গিয়েছিল, শিরা উপশিরা, টিস্যু গুলি মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে তাতে মনে হচ্ছে বিস্ফোরণ ছাড়া এভাবে চামড়া ছিঁড়ে যেতে পারেনা। তার ওপর যন্ত্রনায় প্রায় মৃত্যুর মুখে চলে গিয়েছিল।

কমলজিৎদের সঙ্গে নিয়ে আজ দুপুরে গুরদুয়ারের পেছনে একটি পাড়ায় কুকুরটির অপারেশন করা হয়েছে। আ্যনাস্থেসিয়ার প্রভাব কাটিয়ে আপাততঃ স্থিতিশীল রয়েছে। রবিবার থেকে আমরা আ্যন্টিবায়োটিক চালু করব। আশা করছি কুকুরটি বেঁচে যাবে।’

স্থানীয় কিছু যুবক জানিয়েছেন, কে বা কারা এই ঘটনা ঘটিয়েছে জানি না। কিন্তু কুকুরটির জখম দেখে আমাদের মনে হচ্ছে হয় ওর পায়ের সঙ্গে বাজি বেঁধে দেওয়া হয়েছিল অথবা ঘুমন্ত অবস্থায় কিংবা তার আস্তানায় বাজিটি এমন ভাবে ফাটানো হয়েছে যাতে ও পালানোর সুযোগ পায় নি।

Advertisement

RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

error: Content is protected !!