Thursday, December 2, 2021
Homeজেলাপশ্চিম মেদিনীপুরদশগ্রাম বাজারে শৌচাগার না থাকায়,ক্ষোভ দোকানদারদের।
Advertisement

দশগ্রাম বাজারে শৌচাগার না থাকায়,ক্ষোভ দোকানদারদের।

Advertisement

Advertisement

নিজস্ব সংবাদদাতা,সবং:-বহু পুরনো বাজার কিন্তু নেই শৌচাগার। এমনই ছবি পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার সবং থানার দশগ্রাম পঞ্চায়েতের কেন্দ্রস্থল খাজুরী বাজারে। প্রায় দুই শতাধিক স্থায়ী দোকান আছে এই বাজারে। প্রতিদিন সকাল-বিকাল বাজারও বসে। বাইরে থেকেও অনেক ব্যবসায়ী সহ হাটুরে আসেন। বাজারের মধ্যেই অবস্থিত বাসস্ট্যান্ড। কাজেই প্রতিদিনই প্রচুর নিত্যযাত্রী, মানুষের আগমন হয় এই বাজারে। অথচ এতবড় বাজারের একটিও শৌচাগার নেই। যদিও একটি শৌচাগার রয়েছে তা ব্যবহারের অযোগ্য।

- Advertisement -
Advertisement
- Advertisement -

ফলে বাজারের ক্রেতা-বিক্রেতা সহ সকলকেই সমস্যায় পড়তে হচ্ছে। মানুষ যত্রতত্র মলমূত্র ত্যাগ করতে বাধ্য হচ্ছেন। এতে বাজারের পরিবেশও দূষিত হচ্ছে। যা নিয়ে বিধানসভা ভোটের মুখে ক্ষোভ দানা বাঁধছে। তাই বিধানসভা ভোটের আগে বাজারে শৌচাগার তৈরির জোরালো দাবি উঠছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক দোকানদার বলেন,নির্মল বাংলা মিশন প্রকল্পের আওতায় নির্মল পঞ্চায়েত গোড়ার লক্ষ্যে, বিভিন্ন নির্মল পঞ্চায়েতের নাম ঘোষণা করেছে সরকার। তার পরেও এত বড় বাজারে একটিও শৌচাগার নেই, এটা অত্যন্ত দুর্ভাগ্য জনক। শৌচাগার না থাকায় বাজারে আসা মানুষেরা দারুণ সমস্যায় পড়েছেন। বর্তমানে বাজারে যে হারে মানুষের সমাগম হয়, তাতে কমপক্ষে দুটো বড় মাপের শৌচাগারের খুবই প্রয়োজন। দ্রুত ব্যবস্থা না হলে আগামীতে সমস্যা আরও বাড়বে।‘এই ব্যাপারে দশগ্রাম গ্রাম পঞ্চায়েতর প্রধান অনিল সাঁতরা বলেন, খাজুরি বাজারে একটি শৌচাগারের প্রয়োজন আছে এটা ঠিকই। আগামীতে এই শৌচাগার তৈরি করে দেওয়া হবে। তবে কবে হবে এই শৌচাগারের কাজ, সেই বিষয়ে তিনি কিছু জানাতে পারেননি।

Advertisement

RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

error: Content is protected !!