Sunday, December 5, 2021
Homeজেলাপশ্চিম মেদিনীপুরEXCLUSIVE: কেশিয়াড়িতে পরেশ মুর্মূকে ফের প্রার্থী করার প্রতিবাদে,দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত যুব তৃণমূলের...
Advertisement

EXCLUSIVE: কেশিয়াড়িতে পরেশ মুর্মূকে ফের প্রার্থী করার প্রতিবাদে,দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত যুব তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কল্পনা শীটের

Advertisement

Advertisement

খড়গপুর ২৪×৭,কেশিয়াড়ি: পাঁচ বছর ধরে বিধায়ক ছিলেন কেশিয়াড়ি বিধানসভা থেকে। সেই বিধায়ক পরেশ মুর্মূকে ফের প্রার্থী করা হয়েছে। আর এই ঘোষণার দুই ঘন্টার মধ্যে কেশিয়াড়িতে তৃণমূলের ঘরে আগুন লেগে গিয়েছে। তোলাবাজ, দুর্নীতিগ্ৰস্ত, বহিরাগত পরেশ মুর্মূকে ফের প্রার্থী করার প্রতিবাদে দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করলেন তৃণমূলের কেশিয়াড়ি ব্লকের সহ সভাপতি, যুব তৃণমূলের রাজ্য নেত্রী সহ যুব তৃণমূলের কেশিয়াড়ি ব্লকের সভাপতি ও নয়টি অঞ্চলের সভাপতি। তবে শুধু দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করা নয়। পরেশ মুর্মূকে হারানোর হুমকিও দেওয়া হয়েছে। মিছিল পর্যন্ত হয়েছে। ঘটনায় রীতিমতো বিড়ম্বনায় পড়েছেন তৃণমূলের জেলা নেতারা।

- Advertisement -
Advertisement
- Advertisement -

এই ব্যাপারে তৃণমূলের কেশিয়াড়ি ব্লকের সহ সভাপতি পবিত্র শীট বলেছেন দল চায় দুর্নীতিগ্ৰস্তদের নিয়ে চলতে। আমাদের মত কর্মীদের মতামতের কোনও মূল্য নেই। পরেশ মুর্মূ একজন বহিরাগত ও দুর্নীতিবাজ। মেনে নেওয়া সম্ভব নয়। তাই দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।” আর যুব তৃণমূলের রাজ্য সাধারন সম্পাদক কল্পনা শীট বলেছেন “পরেশ মুর্মূ একজন দুর্নীতিগ্ৰস্ত, তোলাবাজি ও চরিত্রহীন। তিনি বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ থেকে শুরু করে সরকারের বিভিন্ন নিয়োগে কাটমানি নিয়েছেন। তাঁর সম্পর্কে দলের কাছে আগেই সমস্ত কিছু জানানো হয়েছে। তারপরেও দল তাঁকে প্রার্থী করেছে।

সেই কারনে আমরা সকলে দল ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।” রীতিমতো চ্যালেঞ্জ জানিয়ে তিনি বলেছেন পরেশ মুর্মূকে ৪০ হাজার ভোটে হারাব। তিনি জানিয়েছেন পরেশ মুর্মূকে প্রার্থী করার প্রতিবাদে ব্লকের যুব সভাপতি সঞ্জয় গোস্বামী সহ নয়টি অঞ্চলের যুব সভাপতি সহ এক হাজার কর্মী ও সমর্থক দল ছাড়ল। এই ব্যাপারে কেশিয়াড়ি বিধানসভার তৃণমূল প্রার্থী পরেশ মুর্মূ বললেন ” বিষয়টি দল দেখবে। তবে এর আগেও এরা একবার দল ছাড়ার হুমকি দিয়েছিল। এসব ব্ল্যাকমেলের রাজনীতি।” আর তৃণমূলের জেলা সভাপতি অজিত মাইতি বলেছেন ” কেশিয়াড়ি ব্লকে দল ছাড়ার কোনও খবর নেই। কেউ কিছু জানায়নি। বিষয়টি দেখছি।”

Advertisement

RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

error: Content is protected !!