EXCLUSIVE: করোনা পরিস্থিতিতে সবংয়ে বাসন্তী পূজোর অনুষ্ঠান বন্ধ করা নিয়ে, উদ্যোক্তাদের সঙ্গে ধস্তাধস্তি পুলিশের

খড়গপুর ২৪×৭,সবং: বাসন্তী পুজো উপলক্ষে যাত্রা অনুষ্ঠান করতে দেওয়া নিয়ে পুলিশের বিরুদ্ধে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ উঠল। আর এই অভিযোগকে কেন্দ্র করে সোমবার রাতে রীতিমতো ধুন্ধুমার কান্ড ঘটে গেল সবং থানার চাঁদকুড়ি বাজার এলাকায়। কসবা-সবং এলাকায় একটি বাসন্তী পুজো কমিটিকে যাত্রা অনুষ্ঠান করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। অথচ তাঁদের দেওয়া হয় নি।

পুলিশ এই নিয়ে পক্ষপাতিত্ব করছে অভিযোগ তুলে রাত সাড়ে এগারোটা নাগাদ চাঁদকুড়ি বাজার এলাকার বাসিন্দারা পথ অবরোধ শুরু করেন। রাস্তায় নেমে পুজো কমিটির সদস্যরা সহ স্থানীয় বাসিন্দারা বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। আর এই হঠাৎ পথ অবরোধ ও বিক্ষোভের জেরে তেমাথানি থেকে পটাশপুর যাওয়ার রাজ্য সড়কে ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে ডেবরার এসডিপিও দীপাঞ্জন ভট্টাচার্য ও সবং থানার ওসি গৌতম মাইতির নেতৃত্বে বিশাল পুলিশ বাহিনী ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। অবরোধ তুলে নেওয়ার অনুরোধ করা হয়। কিন্তু স্থানীয় পুজো কমিটির সদস্যরা ও বাসিন্দারা পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ তুলে পুলিশকে ঘিরে ধরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। তারপরেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ লাঠি উঁচিয়ে অবরোধকারীদের দিকে তেড়ে যায়।

জনতা ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। আর ঘটনাস্থল থেকে চারজনকে আটক করা হয়। মাইক সেট বাজেয়াপ্ত করা হয়। পুলিশ জানিয়েছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। আর চারজনকে গ্ৰেফতার করা হয়েছে। তবে যে বাসন্তী পুজো কমিটির যাত্রা অনুষ্ঠান করা নিয়ে ক্ষোভ সেই কসবা-সবং এলাকার কমিটির কাউকে পুলিশ অবশ্য কাউকে ধরেনি।

এই নিয়েও চাঁদকুড়ি বাজার এলাকায় ক্ষোভ তৈরি হয়েছে। তবে পুলিশ জানিয়েছে অভিযোগ পাওয়ার পর সেখানে গিয়ে মাঝপথে যাত্রা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। আর করোনার জন্য এইধরনের অনুষ্ঠান আয়োজন করার ব্যাপারে নিষেধাজ্ঞা থাকার বিষয় জানতেন না বলে জানিয়েছেন। জানা গিয়েছে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধির জন্য সরকারের পক্ষ থেকে পুজো উপলক্ষে সমস্ত অনুষ্ঠান আয়োজনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

সেই নির্দেশ মত প্রতিটি পুজো কমিটিকে অনুষ্ঠান বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয় সবং থানার পুলিশ। কিন্তু তারপরেও থানা থেকে ঢিল ছোঁড়া দূরত্বে কসবা-সবং এলাকায় একটি বাসন্তী পুজো রাত্রে যাত্রা অনুষ্ঠান শুরু করে। আর এই খবর চাউর হওয়ার পরেই চাঁদকুড়ি বাজার এলাকায় ক্ষোভ তৈরি হয়। এই ব্যাপারে চাঁদকুড়ি বাসন্তী উৎসব কমিটির অন্যতম সদস্য মদন মোহন পাত্র জানিয়েছেন থানা থেকে নির্দেশ দেওয়া হয় করোনা বিধিনিষেধ মেনে শুধুমাত্র পুজোর আয়োজন করা যাবে।

কিন্তু কোনও অনুষ্ঠান করা যাবে না। সেই নির্দেশ মত তাঁদের কমিটি অনুষ্ঠান বাতিল করেছে। কিন্তু তারপরেও থানা থেকে ঢিল ছোঁড়া দূরত্বে কসবা-সবং এলাকায় একটি বাসন্তী পুজো কমিটি যাত্রা আয়োজন করে। সবকিছু জানার পরেও পুলিশ কোনও পদক্ষেপ নেয় নি। পুলিশের এই পক্ষপাতিত্বের বিরুদ্ধে রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখানো হয়েছে।