নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে! ব্যাংক আধিকারিকদের নিয়ে জরুরি বৈঠক সবং পুলিশের

নিজস্ব সংবাদদাতা,সবং: একদিকে চলছে করোনা,তারপর রাজ্য জুড়ে চলছে লকডাউন। লকডাউন কিছুটা শিথিল হলেও। সন্ধ্যের পর থেকে সমস্ত বাজার থেকে দোকানে লোকজনের যাতায়াত বন্ধ। তার জন্য নিরাপত্তা সংক্রান্ত সমস্যায় ভুগছেন বিভিন্ন ব্যবসায়ীসহ এলাকার সাধারণ মানুষ।

এইসব সুযোগকে কাজে লাগিয়ে সবং সহ আশেপাশের বিভিন্ন এলাকায় চুরির ঘটনা ঘটে চলেছে। আবার কোনো কোনো এলাকায় এটিএম ভেঙ্গে টাকা চুরির ঘটনাও ঘটছে। এই পরিস্থিতিতে ব্যাংকের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করার লক্ষ্যে ব্যাংক আধিকারিকদের নিয়ে জরুরি বৈঠক ডাকলো সবং থানার পুলিশ।

মঙ্গলবার সবং থানা এলাকার ব্যাংকের সমস্ত আধিকারিকদের নিয়ে জরুরী বৈঠক করলেন সবং থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক সুব্রত বিশ্বাস, ডেবরা এসডিপিও দীপাঞ্জন ভট্টাচার্য, সার্কেল ইন্সপেক্টর কৃষ্ণেন্দু হোতা সহ অন্যান্য পুলিশ আধিকারিকরা। এদিন পুলিশ আধিকারিকরা উক্ত এলাকার সমস্ত ব্যাংক আধিকারিকদের নিয়ে কথা বলেন।

এদিন বৈঠক শেষে ডেবরা এসডিপিও দীপাঞ্জন ভট্টাচার্য বলেন, যে সমস্ত ব্যাংকগুলোতে সিসি ক্যামেরা রয়েছে, সেগুলো সচল করতে হবে। তার সঙ্গে সিসিটিভি ক্যামেরা গুলো সচল আছে কিনা তার একটি সার্টিফিকেট থানায় জমা দিতে হবে।

তিনি আরো বলেন,ব্যাংকে থাকা ভোল্ট গুলোতে এলাম লাগানো থেকে শুরু করে, ব্যাংকের চারপাশে নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে হবে। পাশাপাশি কড়া নজরদারি রাখার বার্তা দেন তিনি।

সবং থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক সুব্রত বিশ্বাস বলেন, রাতেরবেলা এলাকার সমস্ত এটিএম গুলিতে পরিস্থিতি দেখে প্রয়োজনে শাটার বন্ধ করতে হবে। নতুবা প্রয়োজনে প্রতিটি এটিএমে সিকিউরিটির ব্যবস্থা রাখা থেকে শুরু করে। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে জানান তিনি।

সবং থানা পুলিশের আজকের এই বৈঠকে সহমত পোষণ করেছেন ব্যাংক আধিকারিক থেকে ব্যাংক কর্মীরা। এই সভা থেকে অনেকটাই সফল হবে ব্যাংক ব্যবস্থা থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ।